রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ০২:২৪ পূর্বাহ্ন

লেখক মকসুদুর রহমানের ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন

লেখক মকসুদুর রহমানের ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

“কোথায় যাচ্ছে বাংলাদেশ” বইয়ের লেখক প্রবাসী মকসুদুর রহমানের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৫ জুলাই) বাংলাদেশ ছাত্রলীগ লিডিং ইউনিভার্সিটি শাখার পক্ষ থেকে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা “কোথায় যাচ্ছে বাংলাদেশ” বইয়ের লেখক মকসুদুর রহমানের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি হিসেবে ফাঁসির দাবি জানান।

ছাত্রলীগ নেতা রুহান বলেন, মকসুদুর রহমান একজন দেশদ্রোহী লেখক। সে তার বইয়ে মনগড়া আমাদের দেশও সরকারের কঠোরভাবে সমালোচনা করেছেন তার লেখা বইয়ে। এই বইয়ে এমন কিছু কথা এবং অধ্যায় লেখা হয়েছে যেগুলো বহির্বিশ্বে দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট করবে। আমরা তার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই। ২০১৪ আর ২০১৯ সালের নির্বাচনকে বিতর্কিত নির্বাচন। এবং অবৈধ ভাবে সরকার গঠন এবং দেশ চালানাের কথা বলেছেন। যা আমাদের দেশ উন্নয়নের অগ্রগতিতে বহির্বিশ্বে বাঁধা হয়ে দাঁড়াবে। তার যা ইচ্ছে তা লিখতে এতে দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট হচ্ছে বহির্বিশ্বে।

রুমন বলেন, খালেদা – হাসিনা নামে দুই সাপ অধ্যায়ে তিনি লিখেছেন, এই দুই পরিবার নিয়ে গঠিত দেশের শাসন ব্যবস্থা নিয়ে আগেই অনেক বলেছি । কিন্তু এই দুই মহিলা নিয়ে আলাদা করে না লেখলেই নয় । দেশের আজ এই হালের প্রধান ১০ টি কারন যদি আলাদা করা হয় তাহলে উপরের দিকে থাকবে এই দুই বিশাক্ত সাপ ৷ এদেরকে বিষাক্ত সাপ বললেই কম হয়ে যায় । দুই নরকের কিট । কালাে নাগীন । এদের ভিতর কি আছে যে দেশের শাসনের ভাব নিবে ? এদের মত খারাপ , বিশ্ব বাটপার , চুর , বােমাবাজ এদের দলের প্রধান কাজই এটা।
করোনা নিয়ে দেশের দূর্নীতি অধ্যায়ে লিখেছেন, এই আওয়ামী সরকারের দুর্নীতির লিস্টে করোনা ছিলাে আরাে বড় একটি সংযােজন । করোনা ভাইরাস দেখিয়ে দিচ্ছে দেশের স্বাস্থ্য খাতের আসল চেহারা । যেখানে নিউইয়র্ক র মত একটা রাজ্যে টেস্ট করানাে হয় ৫০/৬০ হাজার এদিকে আমার দেশে সেখানে প্রতিদিন করা হয় ১০/১২ হাজার টেস্ট । এই দেশকে এখন আমার কাছে পুরাটাই একটা কৌতুক মনে হয় । ২০০ মিলিয়ন মানুষের দেশে ১৫ হাজার টেস্ট । আমার মাঝেমাঝেই কান্না আসে এই দেশের স্বাস্থ্য খাতের দিকে চেয়ে ! অথচ প্রতি বছর ভেট , স্কোর , টেক্স বাড়ানাে হচ্ছে আলাের গতিতে। কিন্তু দিন শেষে সাধারণ জনগন পাচ্ছে মুলা পটল । মানুষদের চোখে ধুলা দেয়া হচ্ছ উন্নয়নের নাম কবে । সরকারের সাহায্যে , প্রত্যেকটা দুর্নীতি বা মন্ত্রীদের সাহায্যে প্রতিদিন বিক্রি হচ্ছে হাজার হাজার করোনা জাল সার্টিফিকেট। আর এই জাল সার্টিফিকেট নিয়ে মানুষ যাচ্ছে বিদেশে । সেখানে গিয়ে সংক্রমণ করছে অন্য মানুষদের । এই আওয়ামী সরকারের মাধ্যমে দেশের সুনাম নষ্ট হজ্জ্ব ইউরােপ , আমেরিকায় । আজকে বিদেশের মানুষ দের কাছে মুখ দেখানাে যায় না । মানুষ বাংলাদেশী মানুষ দেখলে মুখ ফিরিয়ে নেয় । কেনাে ? দুর্নীতি গ্রস্ত সরকার তার স্বাদ মিটিয়ে দিছে করোনা দিয়ে । প্রত্যেকটা মন্ত্রী তাদের পকেট ভরে নিয়েছে স্বাস্থ্য খাতের টাকা নিয়ে । আর হাসপাতালের বারান্দায় সাধারণ মানুষ মরতেছে ধুকে ধুকে । ২০ কোটি মানুষের দেশে ১২৫ টা আইসিইউ ।

এসময় উপস্থিত ছিলেন রনি, রবিন, রুহান, নয়ন, পাবেল, চন্দ্র নাথ, রুমান, রাজু দেব, সাজু, উজ্জ্বল, কাদির, সুমন, ফখর, শাহেদ, জাবের, আলম, নাদিম, রুমন, অজয় প্রমুখ।

Please Share This Post in Your Social Media

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

  • © All rights reserved © 2021 sylhetshimanto.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com